ই-নলেজ এ আপনাকে সুস্বাগতম।এখানে আপনি প্রশ্ন করতে পারবেন এবং ই-নলেজ এর অন্যান্য সদস্যদের নিকট থেকে উত্তর পেতে পারবেন।বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন...।
Download App
person
!
প্রোফাইল আপডেট

ভালো বন্ধুর কি কি গুণ থাকা উচিত??

Image

"সাধারণ" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন (গুণী) (244 পয়েন্ট)  
পূনঃপ্রদর্শিত করেছেন
65 বার প্রদর্শিত

2 উত্তর

2 পছন্দ 0 অপছন্দ
1. প্রথমত সবসময় বন্ধুর পাশে থেকে তার বিপদে আপদে সাহায্য করা।
2. সবসময় সেই বন্ধুর ভালো-মন্দ খোঁজ-খবর নেওয়ার চেষ্টা করা।।
3. সবসময় তার মনের কথা/অবস্থা বোঝার চেষ্টা করা ।
4. এমন কোনো কাজ না করা যাতে বন্ধুত্বের কোনো ভাবে ক্ষতি হতে পারে।
5. আমার মতে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ গুণ হলো , সেই বন্ধুর জন্য সেক্রিফাইস বা ত্যাগ স্বীকার করা। যে বন্ধুত্বের মাঝে ত্যাগ বলতে কিছু নেই সেটা কখনো প্রকৃত বন্ধুত্ব হতে পারে না।। কেননা বন্ধুত্ব মানেই ত্যাগ।
6. সবসময় তার সাথে সব কিছু শেয়ার করা।

আব্দুল্লাহ আল মাসুদ ই-নলেজ এর সহ প্রতিষ্ঠাতা। অপরকে সাহায্য করতে খুব ভালোবাসেন।বর্তমানে তিনি একাদশ শ্রেণিতে অধ্যয়নরত। স্বপ্ন দেখেন একজন ভালো কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ার হওয়ার। স্বপ্ন পূরণের দৃঢ় প্রত্যয়ে এগিয়ে যাচ্ছেন ই-নলেজের সাথে। তাই তিনি সকলের কাছে দোয়া প্রার্থী.....!

আশা করি ই-নলেজের মাধ্যমে আপনি উপকৃত হয়েছেন!আর কোন প্রশ্ন থাকলে, ই-নলেজ এর এক্সপার্টদের প্রশ্ন করে  জানাবেন, ই-নলেজ রয়েছে সবসময় আপনার পাশে।


ই-নলেজ ডট কম, Enolez ask, Best Question and answer site Enolez , সেরা প্রশ্নোত্তরভিত্তিক কমিউনিটি ই-নলেজ!

উত্তর প্রদান করেছেন (বিশারদ) (4,037 পয়েন্ট)  
2 পছন্দ 0 অপছন্দ

একজন ভালো বন্ধুর কিছু গুণাবলি।  

প্রিয় বন্ধু চিরদিনের। হতে পারে দু’জনে আলাদা কলেজ গিয়েছেন, আলাদা শহরে জীবন-যাপন করেন, প্রাত্যহিক জীবনের নানা কর্মকান্ডে ব্যস্ত হয়ে পড়েছেন, কিন্তু এত কিছুর পরও ভালো বন্ধুত্ব কখনোই হারিয়ে যায় না। দুজন ভালো বন্ধু কখনোই একে অপরকে ভুলে যাবে না, বরং আরো বেশি করে একে অপরকে মনে করবে এবং সময় পেলেই একে অপরের সঙ্গে দেখা করে খুনসুটি করবে, এমনই হতে হবে বন্ধুত্ব। রাগ অভিমান করে পরস্পরকে ভুলে গেলে সেটা কখনোই প্রকৃত বন্ধুত্ব নয়। যেকোনো উপায়ে একে অপরের সাথে যুক্ত থাকা এবং মনের ভাব আদান-প্রদান করার চেষ্টার মধ্য দিয়ে বন্ধুত্বকে জিইয়ে রাখতে হয়।

বন্ধুত্বে বিশ্বস্ত থাকা

কথায় আছে বিশ্বাস ভালোবাসার শক্তি। আর বন্ধুত্বে বিশ্বাস রক্ষা করা খুবই জরুরি। তৃতীয় কোনো পক্ষের কথার সূত্র ধরে বন্ধুত্বের বিশ্বাসভঙ্গ কখনোই কাম্য নয়। প্রকৃত বন্ধুকে এ বিষয়টি সবসময় মাথায় রাখতে হয়, তবেই তো প্রকৃত বন্ধুত্ব হয়।

দুঃসময়ে পাশে থাকা

এক বন্ধুর বিপদে চিন্তা-ভাবনা ছাড়াই অন্য বন্ধুর সাড়া দেওয়াই হচ্ছে প্রকৃত বন্ধুত্বের পরিচয়। প্রয়োজনে সময়ে অসময়ে বন্ধুর বিপদে তাকে সাহায্য করা। যে বন্ধুর জন্য আপনি এমন করতে পারবেন এবং যে বন্ধু আপনার পাশে সর্বদা থাকতে পারবে, সে-ই আপনার সত্যিকার বন্ধু।

বন্ধুত্বের ইচ্ছেকে সম্মান জানানো

বন্ধুর ইচ্ছাকে সবসময় সম্মান জানানো উচিত। যদি তা পছন্দ না হয়, তবে সরাসরি বলুন। সম্পর্ক টিকিয়ে রাখতে পরস্পরের প্রতি শ্রদ্ধাবোধ থাকা অবশ্যই জরুরি। সমালোচনা করুন, তবে কটুক্তি নয়। তবে সমালোচনার ভাষা ব্যবহারে সচেতন হওয়ায় খুবই প্রয়োজন। একবার ভুল হলে তাকে ছুঁড়ে না ফেলে তা শুধরে নেওয়াই প্রকৃত বন্ধুর দায়িত্ব। বন্ধুর প্রতি বিনয়ী হওয়া বন্ধুত্বের প্রধান হাতিয়ার।

বন্ধুর প্রকৃত শুভাকাঙ্ক্ষি হওয়া

ভালো বন্ধু সবসময় বন্ধুর ভালো চায়। নিজের ভালো হোক সকলেই চায়, তবে তার জন্য বন্ধুর ক্ষতি হোক এমন ভাবা কিন্তু প্রকৃত বন্ধুর পরিচায়ক নয়। প্রকৃত বন্ধু চাইবেন তার নিজের উন্নতির পাশাপাশি আপনারও উন্নতি হোক। যেখানে কিংবা যত দূরেই থাকুন না কেন, বন্ধুর কল্যাণ কামনাই প্রিয় বন্ধুর পরিচায়ক

বন্ধুত্বে সৎ থাকা

বন্ধুত্বে অবশ্যই সৎ থাকতে হবে। মিথ্যা তথ্য কিংবা ধারণা দিয়ে বন্ধুত্বের সম্পর্ক গড়া যায়, কিন্তু গড়লেও তা কখনোই দীর্ঘস্থায়ী হয় না। আপনি যা সেটাই প্রকাশ করা এবং অযথা কৃত্রিমতা বর্জন করে নিজের ব্যক্তিত্বকে প্রদর্শনের মধ্য দিয়ে বন্ধুর কাছে স্বচ্ছ ধারণা তুলে ধরাই হচ্ছে প্রকৃত বন্ধুর দায়িত্ব। মনের মতো বন্ধু পেতে সততার কোনো বিকল্প নেই। সততা প্রিজারভেটিভ ছাড়াই সম্পর্কের বৃক্ষকে সতেজ রাখে।

বন্ধুকে সময় দেওয়া

দীর্ঘদিনের বন্ধুরা একে অন্যের পেছনে সময় ব্যয় করে। মানুষের পারিপার্শ্বিক অবস্থা প্রতিনিয়ত সময়ের সাথে সাথে পরিবর্তিত হয়। বন্ধুরা হয়তো আগের মতো সময় দিতে পারে না। এর ফলে যে দুই বন্ধুর মধ্যে সম্পর্কের ব্যাঘাত ঘটবে তা কিন্তু না। নতুন বন্ধুদের পাশাপাশি পুরোনো সম্পর্কগুলোকে ঝালাই করে নিতে হয় প্রতিনিয়ত। দৈনন্দিন ব্যস্ততায় পুরোনো বন্ধুত্বকে হারিয়ে ফেলা একদমই উচিত নয়। আপনার বন্ধু আর আপনার মাঝখানে কেবল এক মুঠোফোন দূরত্ব। বন্ধুকে মনে করুন, পুরোনো স্মৃতি রোমন্থন করুন।

ভালো শ্রোতা হওয়া

বন্ধুত্বে ভালো শ্রোতা হওয়াও খুব জরুরি। বন্ধুর সাথে আড্ডায় কেবল নিজের কথাগুলোকেই প্রাধান্য দেওয়া উচিত নয়। বন্ধুকেও কথা বলতে দেওয়া এবং আলোচনায় উৎসাহিত করার মধ্য দিয়ে দুজনের ভালো লাগা, মন্দ লাগা পরষ্পরের বুঝে নিতে সহজ হয়। বন্ধুর সমস্যাগুলোকে গুরুত্ব দেওয়া, বন্ধুর কাছে গুরুত্বপূর্ণ এমন বিষয় নিয়ে উপহাস না করাই প্রকৃত বন্ধুর দায়িত্ব। বন্ধু মানেই কেবল আমার সবটুকু কথা তাকে বলে ফেলা নয়, বরং তার কথাগুলোকেও আপন করে নেওয়া।

বন্ধুত্বকে টিকিয়ে রাখতে শেখা

বন্ধুত্ব টিকিয়ে রাখা অনেক কঠিন কাজ। তবে একজন প্রকৃত বন্ধু সব সময়ই সম্পর্ককে প্রাধান্য দেন। তবে অনেকেই জানে না যে বন্ধুত্ব কিভাবে টিকিয়ে রাখতে হয়। ফলে কারণে-অকারণে নানা সমস্যা সৃষ্টি হয়, দূরত্ব তৈরি হয়, বন্ধুত্ব ক্রমেই হারিয়ে যায়। বিপরীতে যারা দীর্ঘদিন বন্ধুত্ব টিকিয়ে রাখতে চান তাদের থাকতে হবে স্বাভাবিকতা আর প্রাণ চাঞ্চল্য। বন্ধুত্বের মাঝে ভুল বোঝাবুঝি, রাগ, অনুরাগ, ব্যস্ততা, এড়িয়ে চলা, নার্ভাস ভাব ইত্যাদি দূরে রাখা শিখতে হয়।

 

বন্ধুত্ব নিয়ে কয়েকটি বিখ্যাত উক্তি-

প্রকৃত বন্ধু হলো সেই যে তোমার পাশে থাকবে, যখন সারা বিশ্ব চলে যাবে অন্য পাশে। – ওয়াল্টার উইনচেল

সত্যিকারের বন্ধুত্বের চেয়ে মূল্যবান কোনো কিছু এ পৃথিবীতে নেই। – থমাস একুইন্স


পুরনো বন্ধুরা আশীর্বাদ স্বরূপ। কারণ তুমি তাদের সাথেই বোকা সাজতে পারো। – রাল্ফ ওয়াল্ডো এমারসন

বন্ধুত্বের সম্পর্ক একটি মধুর দায়িত্ব, সুযোগ নয়। – খলিল গিব্রেন

জীবনে বন্ধু পাওয়ার একমাত্র উপায় হচ্ছে নিজে একজন বন্ধু হওয়া। – রাল্ফ ওয়াল্ডো এমারসন

বন্ধুত্ব হলো দুটি শরীরে এক মন। – ম্যানচিয়াস

সত্যিকারের বন্ধুত্ব ভালো স্বাস্থ্যের মতো। যতক্ষণ না হারিয়ে যায় তার গুরুত্ব খুব কম উপলব্দি করা যায়। – চার্লস ক্যালেব কোল্টন

আগুন্তক বলে কিছু নেই; কেবল বন্ধু, যাদের সাথে এখনো তোমার সাক্ষাৎ হয়নি। – উইলিয়াম কটলার ইয়েটস

জীবনের সবচেয়ে বড় উপহার হচ্ছে বন্ধুত্ব, এবং আমি তা গ্রহণ করেছি। – হাবার্ট এইচ হামফ্রে

বন্ধুত্ব এবং ভালো ব্যবহার তোমাকে সেখানে নিয়ে যাবে, যেখানে অর্থ তোমায় নিয়ে যেতে পারবে না। – মার্গারেট ওয়াকার

একজন মানুষের বন্ধুত্ব তার সম্পত্তি পরিমাপের অন্যতম মাপকাঠি। – চার্লস ডারউইন

সূত্রঃ ব্রেইনী কোট্‌স, উইকিহাউ, লাইফঅপটিমাইজার।


মোঃ আশরাফ উদ্দিন খান ই-নলেজ ডট কমের প্রতিষ্ঠাতা। খানিকটা অস্তিত্বের তাগিদে আর দেশের জন্য বাংলা ভাষায় কিছু করার উদ্যোগে ২০১৯ সালে তার হাত ধরেই যাত্রা শুরু করে ই-নলেজ ডট কম। বর্তমানে(২০২১) তিনি ৯ম শ্রেণীতে অধ্যয়নরত। আপনাদের সকলের নিকট দোয়াপ্রার্থী।

আশা করি ই-নলেজের মাধ্যমে আপনি উপকৃত হয়েছেন!আর কোন প্রশ্ন থাকলে, ই-নলেজ এর এক্সপার্টদের প্রশ্ন করে  জানাবেন, ই-নলেজ রয়েছে সবসময় আপনার পাশে।


ই-নলেজ ডট কম, Enolez ask, Best Question and answer site Enolez , সেরা প্রশ্নোত্তরভিত্তিক কমিউনিটি ই-নলেজ!

উত্তর প্রদান করেছেন (বিশারদ) (3,119 পয়েন্ট)  

সংশ্লিষ্ট প্রশ্নগুচ্ছ

1 উত্তর
17 অক্টোবর 2019 "সাধারণ জ্ঞান" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন জামিনুল রেজা (পন্ডিত) (12,368 পয়েন্ট)  
1 উত্তর
06 জুন 2020 "সাধারণ" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Atiqur Rahman Atik (গুণী) (300 পয়েন্ট)  
1 উত্তর
06 অক্টোবর 2019 "সাধারণ" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন দানিয়েল রোজারিও (জ্ঞানী) (647 পয়েন্ট)  
0 টি উত্তর
08 জানুয়ারি "ধর্ম ও আধ্যাত্মিক বিশ্বাস" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন অজ্ঞাতকুলশীল  
ই-নলেজ বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য ওয়েবসাইট। এখানে আপনি প্রশ্ন-উত্তর করার মাধ্যমে নিজের সমস্যার সমাধানের পাশাপাশি দিতে পারেন অন্যদের সমস্যার নির্ভরযোগ্য সমাধান! বিভিন্ন ব্যক্তিগত সমস্যা, পড়ালেখা, ধর্মীয় ব্যাখ্যা, বিজ্ঞান বিষয়ক, সাধারণ জ্ঞান, ইন্টারনেট, দৈনন্দিন নানান সমস্যা সহ সকল বিষয়ে প্রশ্ন-উত্তর করতে পারবেন! প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার পাশাপাশি অনলাইনে বাংলা ভাষায় উন্মুক্ত তথ্যভান্ডার গড়ে তোলা আমাদের লক্ষ্য!
তাই আজই যুক্ত হোন ই-নলেজে আর বাড়িয়ে দিন আপনার জ্ঞানের গভীরতা...!
DMCA.com Protection Status


...